• ২৫শে জুন, ২০২১ ইং , ১১ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৫ই জিলক্বদ, ১৪৪২ হিজরী

ভারতে “ব্ল্যাক ফাংগাস” শনাক্ত হয়েছে ১১১ জনের

ভয়েস অফ বাংলাদেশ
প্রকাশিত মে ১৩, ২০২১
ভারতে “ব্ল্যাক ফাংগাস” শনাক্ত হয়েছে ১১১ জনের

নিউজ ডেস্কঃ করোনা থেকে সেরে ওঠার পর নতুন আতঙ্কের নাম ব্ল্যাক ফাংগাস। ভারতের মুম্বাইয়ে ১১১ জন রোগীর ব্ল্যাক ফাংগাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। তারা সবাই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাদের সবাই করোনা থেকে সেরে ওঠার পর এ রোগে আক্রান্ত হন।

ব্ল্যাক ফাংগাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে স্থানীয় বিএমসি মেডিক্যাল এক্সপার্টদের একটি প্যানেল তৈরি করেছে ৷এই প্যানেল এবার ঠিক করবে হাসপাতালে সব রোগীদের কিভাবে চিকিৎসা করা হবে ৷বিএমসির সেন্ট্রাল পার্চেস অথরিটি অ্যান্টিফাংগাল ওষুধ কিনে রেখেছে যার মাধ্যমে ব্ল্যাক ফাংগাসের ক্ষেত্রে ব্যবহার করা যেতে পারে ৷

ব্ল্যাক ফাংগাস সংক্রমক নয়। এ রোগ ধরা পড়লে এর চিকিৎসা করা সম্ভব। তবে এ পর্যন্ত দুজনের মৃত্যু হয়েছে। যদিও খবরটির সত্যতা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, যাদের ডায়াবেটিস আছে তাদের মধ্যে ব্ল্যাক ফাংগাসের সমস্যা বেশি দেখা যাচ্ছে। এছাড়া যাদের রোগ প্রতিরোধক্ষমতা কম তাদেরও এ রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

বিরল এই ছত্রাকের সংক্রমণ খুবই মারাত্মক যা নাক, চোখ এবং কখনও কখনও মস্তিষ্কেও আক্রমণ করে। ভারতের চিকিৎসকরা বলছেন, কোনো কোনো ক্ষেত্রে রোগীরা দু চোখেরই দৃষ্টি হারাচ্ছেন। কিছু কিছু রোগীর ক্ষেত্রে সংক্রমণ ছড়ানো রুখতে চিকিৎসকদের রোগীর চোয়ালের হাড়ও কেটে ফেলে দিতে হয়েছে। তবে সেগুলো একেবারে মারাত্মক পর্যায়ের সংক্রমণের ক্ষেত্রে।