রাইসুল ইসলাম আসাদ- “দেশ স্বাধীন হয়েছিল বলেই অভিনেতা হতে পেরেছি”

প্রকাশিত: ১০:০৩ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২১

রাইসুল ইসলাম আসাদ- “দেশ স্বাধীন হয়েছিল বলেই অভিনেতা হতে পেরেছি”

বরেণ্য অভিনেতা রাইসুল ইসলাম আসাদ। সাংস্কৃতিক অঙ্গনে কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ এ বছর একুশে পদক পাচ্ছেন। এ নিয়ে বেশ উচ্ছ্বসিত এই গুনী অভিনেতা। তিনি বলেন, একজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় পুরস্কার পাচ্ছি, এটা তো বড় পাওয়া। দেশ স্বাধীন হয়েছিল বলেই অভিনেতা হতে পেরেছি।

এর আগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছি। এবার একুশে পদকে সম্মাননা দেওয়া হচ্ছে। আমার কাছে এ পুরস্কারের ব্যাপ্তি অনেক বিশাল।এ স্বীকৃতির জন্য প্রধানমন্ত্রীকেও অশেষ ধন্যবাদ জানাই। বর্তমানে আমাদের সংস্কৃতি কোন দিকে যাচ্ছে বলে মনে করেন? উত্তরে তিনি বলেন, সারা বিশ্ব এখন উম্মুক্ত। যার যখন যা খুশি দেখতে পায়। এক কথায় পৃথিবী সবার মুঠোয় বন্দি। এরমধ্য দিয়ে আমাদের সংস্কৃতি এগিয়ে যাচ্ছে। আমি মনে করি, বর্তমান সরকার দেশের সংস্কৃতির উন্নয়নের জন্যও কাজ করছেন। করোনা ভাইরাসের শুরু থেকে এই অভিনেতা কোনো কাজ করেননি বলে জানান। তবে সম্প্রতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বায়োপিক ‘বঙ্গবন্ধু’র কাজ শুরু করেছেন। এরমধ্যে মুম্বইয়ে এই ছবির একদিনের শুটিংয়ে অংশ নেন তিনি। আসাদকে এই ছবিতে দেখা যাবে মাওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানীর চরিত্রে। খুব শিগগির আবার মুম্বইয়ে উড়াল দেবেন বলেও জানান অভিনেতা। তিনি বলেন, করোনার শুরু থেকে কোনো কাজ করার সাহস হয়নি। বাসায় বন্দি ছিলাম। তবে বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক দিয়ে কাজে ফিরেছি। লকডাউনের আগে দীপংকর দীপনের ‘অপারেশন সুন্দরবন’ ছবিতে অভিনয় করেন ‘লালসালু’খ্যাত এই অভিনেতা। আপনার অবসর কাটে কীভাবে? উত্তরে আসাদ বলেন, শুটিং না থাকলে বাসায় থাকার চেষ্টা করি। প্রচুর বই পড়ি, টিভি দেখি। মাঝে মাঝে গান শোনা হয়। নিকটজনের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ রক্ষা করি। এভাবে সময় কেটে যায়। অভিনয় জীবন নিয়েও কথা বলেন আসাদ। তিনি বলেন, অভিনয় জীবন নিয়ে কোনো অপ্রাপ্তি নেই। এক জীবনে দর্শকের ভালোবাসাসহ নানা পুরস্কার পেয়েছি।