পাট খাতে ১১ শতাংশের বেশি রিটার্ন পেলেন বিনিয়োগকারীরা

প্রকাশিত: ৬:৫২ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৯, ২০২০

পাট খাতে ১১ শতাংশের বেশি রিটার্ন পেলেন বিনিয়োগকারীরা

পাট খাতে পুঁজিবাজারের বিনিয়োগকারীরা ভালো রিটার্ন পেয়েছেন। এ খাতের বিনিয়োগের রিটার্নের হার ১১ শতাংশের বেশি।

শনিবার (১৯ ডিসেম্বর) সাপ্তাহিক পর্যালোচনায় এ তথ্য জানা গেছে।

তথ্যমতে, পুঁজিবাজারে ২০টি খাতের কোম্পানির মধ্যে গেলো সপ্তাহে বিনিয়োগকারীরা ৯টি থেকে ভালো রিটার্ন পেয়েছেন।  এর মধ্যে পাট খাত থেকে সবচেয়ে বেশি রিটার্ন পাওয়া গেছে।  যার হার ১১ দশমিক ২ শতাংশ। এ খাতের বাজার মূলধন অন্যান্য খাতের চেয়ে অনেক কম।  যার পরিমাণ ২২৫ কোটি টাকা।

এদিকে, রিটার্নের দিক দিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রকৌশল খাত।  এ খাতের কোম্পানিগুলোতে বিনিয়োগ করে বিনিয়োগকারীরা গেলো সপ্তাহে ১০ দশমিক ৩ শতাংশ রিটার্ন পেয়েছে।  এ খাতের বাজার মূলধন ৪৬ হাজার ৪৫৯ কোটি টাকা।

এছাড়া রিটার্নের দিক দিয়ে তৃতীয় অবস্থানে আছে খাদ্য ও আনুষাঙ্গিক খাত। এ খাতে বিনিয়োগের মাধ্যমে বিনিয়োগকারীরা গেলো সপ্তাহে ৩ দশমিক ৪ শতাংশ রিটার্ন পেয়েছে।

সিমেন্ট খাতের রিটার্নের হার ২ দশমিক ৯ শতাংশ। এ খাতের বিনিয়োগকারীরা ব্যাংকে আমানতের সুদের হারের চেয়ে কম রিটার্ন পেয়েছে। ফার্মাসিউটিক্যালস খাতে বিনিয়োগ করে বিনিয়োগকারীরা ২ দশমিক ২ শতাংশ রিটার্ন পেয়েছে।

অন্য খাতগুলোর মধ্যে বিবিধ খাতে বিনিয়োগের মাধ্যমে বিনিয়োগকারীরা ২ দশমিক ১ শতাংশ রিটার্ন পেয়েছে।  কয়েকদিন আগে ইন্স্যুরেন্স খাত বাজারে বেশ আলোচনায় ছিল। এখানো এ আলোচনার রেশ কাটেনি। এ খাত থেকে বিনিয়োগকারীদের রিটার্নের হার খুবই সামান্য।  জীবন বিমা খাতের রিটার্নের হার ১ দশমিক ৫ শতাংশ। এছাড়া টেলিকমিউনিকেশন খাতের ১ দশমিক ৪ শতাংশ এবং মিউচ্যুয়াল ফান্ড খাতের রিটার্নের হার দশমিক ৮ শতাংশ। অন্যান্য খাতগুলো থেকে বিনিয়োগকারীরা আলোচ্য সপ্তাহে রিটার্ন পায়নি।